bn বাংলা
৪ঠা ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

কুমিল্লা লালমাইয়ে বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিট থেকে বসতঘর ও গবাদী পশু পুড়ে ছাই

নিজস্ব প্রতিবেদক।।
অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় কুমিল্লার লালমাই উপজেলার বাকই উত্তর ইউনিয়নের জয়শ্রী গ্রামের তিন পরিবারের তিনটি বসতঘর ২টি রান্নাঘর, নগদ টাকা ও আসবাবপত্র পুড়ে ছাই হয়েছে।

এ সময় অগ্নিদ্বগ্ধ হয়ে মারা গেছে একটি গর্ভবতী গাভী। গতকাল শুক্রবার ৩০ অক্টোবর রাত ৩ টায় এই ঘটনা ঘটে।

এলাকাবাসী জানায়, গভীর রাত সকলে ঘুমিয়ে ছিলো মফিজ মিয়ার গরু ঘর থেকে বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিট থেকে আগুনের সূত্রপাত হয় মূহুর্তের মধ্যে মফিজ মিয়া, হাফেজ আনোয়ার ও ডা.ফয়েজ উল্যাহর ঘরে আগুন লেগে সব পুড়ে ছাই হয়ে যায়।

স্হানীয় ইউপি মেম্বার আবুল কাশেম বলেন আগুনের লেলিহান শিখা দেখে দৌড়ে আসি। যারা ঘুমিয়ে ছিলো তাদের ডেকে তুলি তারা এক কাপড়ে বেরিয়ে আসে । গ্রামবাসীর চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে।লাকসাম ফায়ার সার্ভিসকে জানালে তারা আসতে আসতে সব শেষ হয়ে যায়।

এছাড়া রাস্তা না থাকায় ফায়ার সার্ভিসের গাড়ী ওই স্থানে ডুকতে পারেনি। ঘরের আসবাবপত্র, নগদ টাকা, স্বর্ন , ফ্রীজ, চাউল কাপড় জামা পুড়ে ছাই হয়। এতে ক্ষতির পরিমান প্রায় ত্রিশ লক্ষ টাকা।

বাকই উত্তর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আইউব আলী জানান,ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবার গুলোর জন্য তাৎক্ষণিক ১০০ কেজি চাউল সহায়তা প্রদান করা হয়েছে।

লালমাই থানা অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ আইউব বলেন থানা পুলিশের একটি টিম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।

এছাড়া সামাজিক সংগঠন মাওলানা আবদুল হাকিম ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা সৌদি প্রবাসী মো. ফরহাদ হোসেন তার উদ্যোগে, ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান দেলোয়ার হোসেন, আনোয়ার হোসেন মজুমদার, ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমানের উপস্থিতিতে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবার গুলোকে ৩০ হাজার টাকা অর্থ সহায়তা করেন। পরবর্তীতে আরও অর্থ সহায়তা করবেন বলে তিনি প্রতিশ্রুতি দেন।

আরো দেখুন
error: Content is protected !!