২০শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
৬ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কুমিল্লার ব্রাহ্মণপাড়ায় ইমামকে গলা কেটে হত্যা চেষ্টা ঘাতক গ্রেফতার

নিজস্ব প্রতিবেদক।।
কুমিল্লার ব্রাহ্মণপাড়ার শশীদল ইউনিয়নের সাজঘর কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের ইমাম শাহাদাত হোসেন (২৪)কে গলা কেটে হত্যা চেষ্টার চাঞ্চল্যকর আসামি মোঃ আল-আমিনকে গ্রেফতার করেছে ব্রাহ্মণপাড়া থানা পুলিশ।

রোববার (৫ ফেব্রুয়ারি) উপজেলার সীমান্তবর্তী এলাকা কৃষ্টিপুর থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

আহত মুয়াজ্জিনের চাচাতো ভাই উত্তর চান্দলা গ্রামের মৃত মোখলেস মিয়ার ছেলে নূরে আলম এ প্রতিনিধিকে জানান, আমার চাচাতো ভাই শাহাদাত হোসেন ছয় বছর পূর্বে শশীদল ইউনিয়নের সাজঘর উত্তর পাড়া কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে মাসিক বেতনে ইমামের দায়িত্ব পালন করে আসছিল।

গত ৩ ফেব্রুয়ারি রাত ১১ টার সময় সাজঘর সেলিম হুজুরের বাড়ির মোঃ মোক্তার হোসেনের ছেলে মোঃ আল-আমিন (২২) মসজিদের ইমামের কাছে গিয়ে এক হাজার টাকা হাওলাত চায়।

এ সময় ইমাম শাহাদাত হোসেন তাকে এক হাজার টাকা হাওলাত দেন। পরে আল-আমিন রাতে ইমামের সাথে ঘুমাইতে চাইলে ইমাম শাহাদাত হোসেন তাকে নিষেধ করে।

পরে আল-আমিন ক্ষিপ্ত হয়ে তার সাথে থাকা একটি ধারালো ছুরি দিয়ে ইমাম শাহাদাত হোসেনের গলা কেটে হত্যার চেষ্টা করে।

এ সময় শাহাদাত হোসেন ছুরিকাঘাতে গুরুতর আহত হয়। আহত ইমাম শাহাদাত হোসেনের চিৎকারে এলাকাবাসী এগিয়ে আসলে হামলাকারী আল-আমিন ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়।

পরে এলাকাবাসী আহত শাহাদাত হোসেনকে উদ্ধার করে ব্রাহ্মণপাড়া সদরের একটি প্রাইভেট হাসপাতালে নিয়ে আসলে সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণের নির্দেশ দেন।

বর্তমানে আহত ইমাম শাহাদাত হোসেন কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রয়েছে।

এ ব্যপারে আহত ইমাম শাহাদাত হোসেনের পিতা আব্দুল মতিন বাদী হয়ে ব্রাহ্মণপাড়া থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

ব্রাহ্মণপাড়া থানার এসআই সৌরভ হোসেন বলেন, ছুরি দিয়ে ইমাম হত্যা চেষ্টার অভিযুক্ত আসামি আল-আমিনকে উপজেলার শশীদল ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী এলাকা কৃষ্টিপুর থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

ব্রাহ্মণপাড়া থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শেখ মাহমুদুল হাসান রুবেল বলেন, ইমাম শাহাদাত হোসেনকে গলা কেটে হত্যা চেষ্টার অভিযুক্ত আসামি আল-আমিনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

আরো দেখুন
error: Content is protected !!